শনিবার, ২০ জানুয়ারী ২০১৮, ০৮:৪৯ পূর্বাহ্ন

৫ ধরণের পুরুষ স্বামী হিসেবে একেবারেই পারফেক্ট নন !

৫ ধরণের পুরুষ স্বামী হিসেবে একেবারেই পারফেক্ট নন !

maraaige

লাইফস্টাইল ডেস্ক :

নারীদের জীবনে সবচাইতে দুশ্চিন্তার একটি বিষয় হচ্ছে বিয়ে এবং জীবনসঙ্গী। ছোটবেলা থেকে একটি পরিচিত পরিবেশে সকলের সাথে হেসে খেলে মানুষ হওয়া নারীরা সবসময়েই অন্য আরেকটি পরিবেশ গিয়ে নিজেকে মানিয়ে নেয়ার চেষ্টা করতে থাকেন জীবনের বাকিটা সময়।

এর মাঝে যদি সঙ্গী পুরুষটির সঠিক সঙ্গ না পাওয়া যায় তাহলে নারীদের জীবন হয়ে উঠে আরও দুর্বিষহ। সে কারণে অনেক নারীকেই ভাবতে দেখা যায় কেমন পুরুষকে বিয়ে করা যায় সে বিষয়টি নিয়ে। কারণ মানিয়ে চলার বিষয়টি তখনই আসে যখন অন্য তরফ থেকে সহযোগিতার হাত এগিয়ে আসে। কিন্তু কোন ধরণের পুরুষ স্বামী হিসেবে ভালো হবেন এবং কারা হবেন মন্দ তা বুঝে উঠা খুবই কঠিন। আজকে চিনে নিন স্বামী হিসেবে বাজে এমন ৫ ধরনের পুরুষ।

১. নারীরা খারাপ ছেলেদের প্রতি একটি বেশিই আকৃষ্ট থাকেন। এই বিষয়টির সাথে বিজ্ঞানও একমত। নানা গবেষণায় দেখা দেয় নারীরা খারাপ পুরুষের প্রতি তীব্র আকর্ষণ অনুভব করেন। কিন্তু তিনি ভালো হয়ে যাবেন এই আশায় তাকে বিয়ে করার মতো ভুল কাজটি করতে যাবেন না একেবারেই। এই ধরনের ছেলেরা স্বামী হিসেবে একেবারেই খারাপ হয়ে থাকেন।

২. অতিরিক্ত আত্মকেন্দ্রিক ধরণের পুরুষের সাথে খুব বেশীক্ষণ কথা বলাও সম্ভব হয়ে উঠে না। এই ধরণের পুরুষেরা নিজের প্রশংসায় নিজেই পঞ্চমুখ হয়ে থাকেন। নিজের রূপ-গুণ থেকে শুরু করে সবকিছুরই গুণগান সবসময় শুনতে থাকবেন এইধরনের পুরুষের মুখে। এবং তিনি স্বামী হিসেবেও নিজেকেই অনেক বেশি ভালো জাহির করতে থাকবেন যা অনেক সময়েই বিরক্তির কারণ হয়ে দাঁড়াবে। সুতরাং সাবধান।

৩. অতিরিক্ত মা ঘেঁষা ছেলেরা মানুষ হিসেবে ভালো হলেও স্বামী হিসেবে মোটেই সুবিধার নন যদি না তার ন্যায় অন্যায় জ্ঞান প্রবল থাকে। কারণ মায়ের প্রতি শ্রদ্ধা, মমতা প্রদর্শন করতে গিয়ে সে অনেক সময়েই স্ত্রীর প্রতি কর্তব্য পালন করতে পারেন না। অন্যায় হতে দেখলেও মেনে নেন মাথা নিচু করে।

৪. আমি অনেক কিছু জানি, আমি তোমার থেকে বেশি জানি এই ধরণের ভাব ধরা পুরুষ থেকে একশ হাত দূরে থাকুন। কারণ এই ধরণের পুরুষেরা নিজেদের মতামতকেই বেশি প্রাধান্য দিয়ে থাকেন, নিজেকে অনেক বেশি জ্ঞানী মনের করেন বিধায় স্ত্রীর মতামত নেয়ার প্রয়োজনও অনুভব করেন না। এমন পুরুষেরা স্বামী হিসেবে একেবারেই ভালো নয়।

৫. অতিরিক্ত নিয়ন্ত্রনে রাখতে চাওয়া পুরুষের সাথে একেবারে মাটির মানুষের মতো নারীরাই ঘর করতে পারেন। কারণ প্রতিটি কাজে বাঁধা এবং নিজের আওতাধীন রাখতে চাওয়াই এইধরনের পুরুষের মূল লক্ষ্য যা আধুনিক এবং প্রগতিশীলা নারীরা একেবারেই সহ্য করতে পারেন না। সুতরাং সতর্ক থাকুন।

 


© All rights reserved © 2017 BanglarKagoj.Net
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com