বুধবার, ১৭ জানুয়ারী ২০১৮, ০৯:০৩ অপরাহ্ন

শেরপুরে পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহার

শেরপুরে পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহার

index

শেরপুর প্রতিনিধি :

টানা চারদিন ধরে চলার পর দূরপাল্লার পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নিয়েছে শেরপুর জেলা বাস মালিক সমিতি। ধর্মঘটের অবসানের সংবাদে সাধারণ যাত্রীদের মধ্যে স্বস্তি ফিরে এসেছে।

শনিবার সন্ধ্যায় হুইপ আতিউর রহমান আতিকের মধ্যস্থতায় পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহার করা হয়।

এছাড়া আগামী আগস্ট মাসের মধ্যে বাস-কোচ মালিক সমিতি পুনর্গঠন, শেরপুর-ঢাকা রুটে নবীনগর বাসস্ট্যান্ড থেকে একটি নতুন কোচ সার্ভিস চালুর সিদ্ধান্তে পূর্বের নিয়মে নবীনগর ও বাগরাকসা বাস টার্মিনাল থেকে দূরপাল্লার বাস চলাচলের সিদ্ধান্ত নিয়েছে মালিক সমিতি।

এর আগে, সোনার বাংলা পরিবহন সার্ভিসের বাস চলাচলে চাঁদাবাজি নিয়ে শ্রমিক ইউনিয়নের সধারণ সম্পাদকের সঙ্গে দ্বন্দ্বের জের ধরে গত ১০ জুন সকাল থেকে অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটের ডাক দেয় শেরপুর জেলা বাস মালিক সমিতি। এ সময় একপক্ষ অপর পক্ষকে চাঁদাবাজ হিসেবে আখ্যায়িত করে পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলনও করে।

এমন পরিস্থিতিতে সঙ্কট নিরসনে গত শুক্রবার রাতে বাস মালিক সমিতি ও শ্রমিক ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দদের নিয়ে বৈঠক করেন জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ জাকীর হোসেন ও পুলিশ সুপার মেহেদুল করিম। তবে শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক গোলাম মোস্তফা মস্তু নবীনগর আন্তঃজেলা বাসস্ট্যান্ড থেকে সোনার বাংলাসহ সব বাস চলাচলের দাবিতে অনঢ় থাকেন।

অন্যদিকে, মালিক সমিতির সভাপতি ছানুয়ার হোসেন ছানু ও সাধারণ সম্পাদক বাগরাকসা লোকাল বাস টার্মিনাল থেকে সোনার বাংলা চালুর দাবিতে অনঢ় থাকেন।

দুইপক্ষের মধ্যে সমঝোতা না হওয়ায় শনিবারও দূরপাল্লার বাস চলাচল বন্ধ থাকে। শনিবার দুপুরে ঢাকা বিভাগীয় উত্তরাঞ্চলীয় মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আমিনুল ইসলাম শামীম চেম্বারের একটি অনুষ্ঠানে শেরপুর আসলে হুইপ আতিউর রহমান রহমান আতিকের সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হয়। পরে শেরপুর চেম্বারের সভাপতি মো. মাসুদের বাসভবনে মধ্যাহ্ন ভোজের সময় পৌর মেয়র হুমায়ুন কবীর রুমান, বাস মালিক সমিতির সভাপতি ছানুয়ার হোসেন ছানু এবং শ্রমিক নেতৃবৃন্দদের নিয়ে এক বৈঠক করেন।

বৈঠকে উপস্থিত থাকা নেতৃবৃন্দ জানান, আগামী ২০ আগস্টের মধ্যে শেরপুর-ঢাকা রুটে নতুন নামে একটি বিরতিহীন বাস সার্ভিস চালু করা হবে। যে সার্ভিসটি নবীনগর বাসস্ট্যান্ড থেকে চলাচল করবে। আগের মতো সোনার বাংলা সার্ভিস বাগরাকসা বাস টার্মিনাল এবং তুরাগ, ড্রীমল্যান্ড, প্রভাতীসহ অন্যান্য সার্ভিস নবীনগর বাসস্ট্যান্ড হতে চলবে। নৈশ কোচগুলো শহরের ভেতর থেকে চলবে। তবে শিগগিরই সেগুলো নবীনগরে যাবে। এছাড়া ২ আগস্টের মধ্যে জেলা বাস মালিক সমিতি পুনর্গঠন করা হবে।

বৈঠকের বিষয়ে হুইপ আতিউর রহমান আতিক জানান, পরিবহন ধর্মঘট অবসান ও পরিবহন মালিক-শ্রমিকদের সঙ্কট নিরসন করা হয়েছে।

শেরপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. হায়দর আলী জানান, আগামী ২ আগস্ট পর্যন্ত আগের নিয়মে দূরপাল্লার বাস চলাচল করবে। আরও একটি নতুন সার্ভিস চালু করার শর্তে ধর্মঘট প্রত্যাহার করেছে মালিক সমিতি।


© All rights reserved © 2017 BanglarKagoj.Net
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com